More

    যশোর জেনারেল হাসপাতালে সক্ষমতা’র দ্বিগুণ করোনা রোগী

    হাসপাতালের সিট স্বল্পতায় ভর্তিই হতে পারছেন না অনেক রোগী

    যশোর ব্যুরো:

    করোনা ভাইরাসের দ্বিতীয় ধাক্কায় যশোরের পরিস্থিতি ভয়াবহ হয়ে উঠেছে। আর প্রতিনিয়ত করোনাক্রান্ত রোগীর সংখ্যা বৃদ্ধি পাওয়ায় রোগীর চাপ সামাল দিতে পারছে না যশোর জেনারেল হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

    হাসপাতালে বর্তমান যে অবকাঠামো ও জনবল সেটা দিয়ে কোনভাবেই এতো রোগীর চাপ সামাল দেওয়া সম্ভব নয় বলে জানিয়েছেন হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

    যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে করোনা রোগীদের জন্যে শয্যা সংখ্যা ১৪৬টি। জায়গা না পেয়ে ৮২ রোগীকে ফ্লোরিং করতে হচ্ছে। আর হাসপাতালের সিট স্বল্পতা’র কারণে ভর্তিই হতে পারছেন না অনেক রোগী।

    ইয়েলো ও রেড জোনে জায়গা না পেয়ে অনেক রোগীকে ঢাকা বা খুলনা’তে নিয়ে যেতে হচ্ছে। আর যাদের সামর্থ্য নেই তারা এলাকায় চলে যাচ্ছে। এলাকায় চলে যাওয়া রোগীদের থেকে কমিউনিটি সংক্রমণের হারও বেড়ে যাচ্ছে।

    যশোর জেনারেল হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডা. মো. আখতারুজ্জামান প্রভাতী সংবাদকে বলেন, ‘যশোর জেনারেল হাসপাতালে ডাক্তার ও নার্সসহ অন্যরাও সর্বোচ্চ সেবা দিয়ে দিন-রাত কাজ করে চলেছেন। ক্রমবর্ধমান রোগীর চাপ সামাল দেয়ার জন্য হাসপাতালের বেডের সংখ্যাও দ্বিগুণ করা হয়েছে।’

    ‘একইসাথে হাসপাতালে ১১ বেডের আইসিইউ ও ১৫ বেডের এইচডিইউ’র চালু করা হয়েছে। বেসরকারি সংস্থা সাজেদা ফাউন্ডেশন এ ব্যাপারে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের সাথে একইভাবে কাজ করছে।’

    তবে রোগীদের অবকাঠামো ও জনবল সংকটের কারণে যথাযথ সেবা দিতে পারলেও ডা. আক্তারুজ্জামান প্রভাতী সংবাদকে বলেন, ‘বর্তমানে বিদ্যমান জনবল ও চিকিৎসা সরঞ্জামাদি দিয়ে যথেষ্ট দক্ষতা ও সফলতার সঙ্গেই করোনা মহামারীকে মোকাবিলা করছি। ’

    যশোর জেনারেল হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা আরিফ আহমেদ প্রভাতী সংবাদকে বলেন, ‘করোনা রোগীদের জন্য নির্ধারিত রেড এবং ইয়েলো জোনে ২২৮ জন করোনা ও উপসর্গের রোগী ভর্তি রয়েছেন।এদের মধ্যে রেড জোনে ভর্তি রয়েছেন ১৬২ আর ইয়েলোতে ৬৬ জন।

    এদিকে যশোর জেনারেল হাসপাতালের সোমবারের তথ্যানুযায়ী করোনা আক্রান্ত ও উপসর্গে আরও ১৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। ১৭ জনের মধ্যে করোনায় আক্রান্ত হয়ে ১২ জন আর অন্য পাঁচজন করোনা উপসর্গে মারা গেছেন। এছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে ৩১১ জন করোনা শনাক্ত হয়েছেন।

    সোমবার (১২ জুলাই) যশোর সিভিল সার্জন অফিসের মুখপাত্র ডা. মো. রেহেনেওয়াজ এ বিষয়টি প্রভাতী সংবাদকে নিশ্চিত করেছেন।

    তিনি জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় জেলার ৯৩৯ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ৩১১ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। এ সময়ে মারা গেছেন ১৭ জন। তাদের মধ্যে আ্ক্রান্ত ১২ ও উপসর্গে পাঁচজন রয়েছেন।

    যশোরে ৪২ শতাংশ করোনা রোগী’র ভারতীয় ভ্যারিয়েন্ট

    যশোরে করোনাক্রান্ত’দের মাঝে ভারতীয় ডেল্টা ধরণ ৪২ শতাংশ। অন্যদিকে আফ্রিকার গামা ধরণ ৩০ শতাংশ, যা এখন গ্রামে ছড়িয়ে পড়েছে। ভারতীয় ধরণে আক্রান্ত একজন রোগী ৬ জনকে পর্যন্ত আক্রান্ত করছে। হৃদরোগে আক্রান্ত হবার আশংকা ৮৩ শতাংশ করোনাক্রান্তের আর আফ্রিকার ধরণে হৃদরোগে আক্রান্তের আশংকা ৬০ শতাংশের।

    যশোর জেলা সিভিল সার্জন অফিস তথ্যমতে, জেলায় এপর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃতের সংখ্যা দেড়শ’ ছাড়িয়েছে।

    যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের জিনোম সেন্টারের সহকারী পরিচালক অধ্যাপক ইকবাল কবীর জাহিদ জানান, যশোরে করোনার ভারতীয় ডেল্টা ধরণ ৪২ শতাংশ ও আফ্রিকার গামা ধরণ ৩০ শতাংশ ছড়িয়ে পড়েছে। যা এখন গ্রামে ছড়িয়ে পড়ছে। ভারতীয় ধরণে আক্রান্ত একজন রোগী ৬ জনকে আক্রান্ত করছে। তাদের হৃদরোগে আক্রান্ত হবার আশংকা ৮৩ শতাংশ, আর আফ্রিকার ধরণে হৃদরোগে আক্রান্ত হবার আশংকা ৬০ শতাংশ। দ্রুত টিকাদান অথবা মানুষের শরীরে ইমিউনিটি বাড়াতে হবে, না হলে সামনে আরও ভয়াবহ পরিস্থিতি আসতে পারে।

    যশোরের জেলা প্রশাসক মো: তমিজুল ইসলাম খান জানান, যশোরে করোনা সংক্রমণ বেড়েই চলেছে। শনাক্তের উর্ধ্বগতি রুখতে কঠোর বিধি-নিষেধ কার্যকরে কাজ করছে জেলা প্রশাসন।

    বিধিনিষেধ প্রতিপালনে সেবাবাহিনী, বিজিবি ও পুলিশকে জনগণের সহযোগীতা চেয়েছেন, পাশাপাশি বিধিনিষেধ প্রতিপালনে সকলের সহযোগিতাও কামনা করেছেন তিনি।

    © এই নিউজ পোর্টালে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।
    / month
    placeholder text

    সর্বশেষ

    রাজনীাত

    বিএনপি চেয়ারপারসনের জন্য বিদেশে হাসপাতাল খোজা হচ্ছে

    প্রভাতী সংবাদ ডেস্ক: বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার বিদেশে উন্নত চিকিৎসার জন্যে আবেদন করা হয়েছে। খালেদা জিয়ার পরিবারের সদস্যরা মনে করেন আবেদনে সরকারের দিক থেকে ইতিবাচক...

    আওয়ামী লীগের শান্তি সমাবেশ

    আরো পড়ুন

    Leave a reply

    Please enter your comment!
    Please enter your name here

    spot_imgspot_img